শিরোনামঃ

আজ শনিবার / ২৫শে অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ / হেমন্তকাল / ১০ই ডিসেম্বর ২০২২ খ্রিস্টাব্দ / ১৫ই জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরি / এখন সময় সকাল ১০:২৮

ঈশ্বরদী নৌকায় ভোট চেয়ে উঠান বৈঠক করেছেন আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী মিজানুর রহমান স্বপন

সেলিম আহমেদ, ঈশ্বরদী থেকে :  ঈশ্বরদী-আটঘরিয়া (পাবনা-৪) আসনের আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী ঈশ^রদী সরকারি কলেজের সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ও ঈশ^রদী পৌর আওয়ামীলীগের শিÿা বিষয়ক সম্পাদক মিজানুর রহমান স্বপন আজ সোমবার সকালে ঈশ্বরদী শহরের আকবরের মোড়ে উন্নয়নের প্রতিক নৌকার পÿে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে রায় ও ভোট চেয়ে উঠান বৈঠক করেছেন। ধিরে ধিরে উঠান বৈঠকটি এক সময় জনসভায় পরিণত হয়। উঠান বৈঠকে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মিজানুর রহমান স্বপন।
মিজানুর রহমান স্বপনের উঠান বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন ৬ নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আক্কাস আলী, সাবেক শ্রমিকলীগ নেতা আব্দুল মান্নান, ঈশ্বরদী উপজেলা যুবলীগের সাবেক যুগ্ন সম্পাদক আনিসুর রহমান আনিস, ঈশ্বরদী পৌর যুবলীগের সাবেক যুগ্ন সম্পাদক মোশারফ হোসেন নয়ন, পৌর যুবলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, পৌর যুবলীগের সাবেক নেতা নূর আমিন, নুরুল ইসলাম লাড্ডু, সোলেমান জোয়াদ্দার সোলে, মিলন হোসেন, যুবলীগ নেতা বাবুল আহমেদ বাবু, আফজাল হোসেন ও আব্দুল হান্নানসহ স্থানীয় আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকমীরা।
মিজানুর রহমান স্বপন বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বিশ^ শান্তির অগ্রদূত সমকালিন যুগে সর্বকালের হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সুযোগ্য কন্যা উন্নয়নের রুপকার দেশরতœ জননেত্রী শেখ হাসিনা রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে মাদার অব হিউমিনিটি খেতাব পেয়েছেন। এই বুকে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ লালন-ধারণ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী হয়েই আমার আওয়ামীলীগের রাজনীতিতে পথচলা শুরু। আওয়ামীলীগের ফেরিওয়ালা হিসেবে আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর উন্নয়নের বার্তা মানুষের কাছে পৌঁছে দিতেই অবিরাম কাজ করে যাচ্ছি। ষোল কোটি মানুষের মুক্তির প্রতীক, মানবতার প্রতিক ও নৈতিকতার প্রতিক হচ্ছে নৌকা। এদেশের মানুষ নৌকাকে বিজয়ী করেছিল বলেই দরিদ্র বাংলাদেশ আজ বিশ্বের বুকে উন্নয়নের নতুন রোল মডেল হিসেবে মাথা তুলে পরিচিত হয়ে উঠেছে। শেখ হাসিনা দারিদ্রতাকে জয় করে দেশকে উন্নয়নের পথে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন।
তিনি বলেন, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্প, পদ্মা সেতু, মহাকাশে স্যাটেলাইট স্থাপন, নারীর মতায়ন, তথ্য ও প্রযুক্তি সেবা ঘরে ঘরে পৌছে দেওয়াসহ দেশজুড়ে অভাবনীয় উন্নয়ন হয়েছে। দেশে সন্ত্রাস, মাদক ও জঙ্গিবাদ অনেকাংশে কমে গেছে। ফলে দেশের মানুষ এখন সুখ-শান্তিতে বসাবাস করছেন। শেখ হাসিনা দারিদ্রতাকে জয় করে দেশকে উন্নয়নের পথে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। উন্নয়নের এই ধারাবাহিকতা বজায় থাকলে ২০৪১ সালে বাংলাদেশ উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত হবে।
স্বপন আরও বলেন, বর্তমান সরকার হচ্ছে উন্নয়নমূখি সরকার। এই সরকার যখন দেশের দায়িত্ব নেয় তখন উন্নয়ন হয়। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার দেশের মানুষের ভাগ্যোন্নয়নের জন্য ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। মুক্তিযোদ্ধা ভাতা, বয়স্ক ভাতা, বিধবা ভাতা, অসহায় নারীদের মাতৃত্বকালীন ভাতা,স্বামী পরিত্যক্তাদের জন্য ভাতা এবং পঙ্গু অসহায়দের বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা

মুক্তিযোদ্ধাদের থাকার জন্য বাড়ি করে দিয়েছেন, যা অন্য কোনো সরকারের আমলে দেয়া হয়নি। আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এদেশের মানুষ শেখ হাসিনার উন্নœয়নমুখী সরকারকে ভোট দিয়ে আবারও রাষ্ট্রীয় মতায় বসাবেন। ঈশ্বরদী-আটঘরিয়া আসনে আমি আওয়ামীলীগের একজন মনোনয়ন প্রত্যাশী। জননেত্রী শেখ হাসিনা তরুণ নেতৃত্বের কথা বলেছেন, ত্যাগী ও সততার কথা বলেছেন। তাই আমি তার কথায় আশাবাদী ও অনুপ্রাণিত। আমি তার উন্নয়নের বার্তা মানুষের কাছে পৌঁছে দিতেই অবিরাম কাজ করে যাচ্ছি। তিনি যদি আমাকে যোগ্য মনে করেন তাহলে মনোনয়ন দিবেন। তিনি অন্য কাউকে মনোনয়ন দিলেও আমি নৌকার পে কাজ করবো এবং নৌকা মনোনীত প্রার্থীর পইে গণসংযোগ চালিয়ে যাবো।

About admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Share via
Copy link
Powered by Social Snap